how-to-win-logo-design-contest-1024x512

কিভাবে জিতবেন লোগো ডিজাইন প্রতিযোগিতা। দারুন কিছু টিপস।

কিভাবে জিতবেন লোগো ডিজাইন প্রতিযোগিতা। দারুন কিছু টিপস।

আপনার শক্তিটা জানুন আগে

গ্রাফিক ডিজাইন অনেক বড় একটা জায়গা তাই সবাইকে সব কিছু জানতে হবে এমন কথা নাই,  কেউ আছে যারা লোগো খুব ভালো বানায়, কেউ আছে ওয়েব টেমপ্লেট আবার কেউ বিজনেস কার্ড। কেউ ফটোশপ পছন্দ করে কেউ আবার ইলাস্ট্রেটর।কেউ টেক্সট লোগোতে এক্সপার্ট আবার কেউ থ্রিডি লোগোতে এক্সপার্ট।

আগে বের করুন আপনি কোনটা পছন্দ করেন। বলছি না যে আপনি শুধু আপনার পছন্দের কাজ খুঁজে বের করেন তারপর ও এটা সত্যি যে জিতার সম্ভবনা অনেক বেড়ে যায় যখন আপনি আপনার পছন্দের কাজটা করবেন।

বায়ার এর পছন্দ অথবা অপছন্দ জানাটা জরুরি

ভালো করে ব্রিফ পড়ুন, একবার দুইবার না কয়েকবার পড়ুন। বের করার চেস্টা করুন বায়ার কি পছন্দ করে অথবা করে না। এমন না কিন্তু যে সে সব কিছু আপনাকে বলে দিবে, একটু  পড়ে ও কিন্তু অনেক কিছু বের করা যায়, সেভাবে চিন্তা করেন।যদি না বুঝেন তাহলে জানতে চান তার কাছে, । অস্পষ্ট ভাবে কোন প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহন করলে আপনার সময়টাই নষ্ট হবে শুধু।তাই যেগুলি আপনি বুঝবেন না তার জন্য সময় দিয়েন না। বায়ার যদি আগের লোগো অথবা আগের ডিজাইন দেয় তাহলে সেটা কোনভাবে সেটার মিল রাখবেন না কারন খুব সহজ কারন হলো বায়ার পরিবর্তন চাচ্ছে। আর বায়ার যদি বলে আগেরটা একটু পরিবর্তন করে দেয়ার তাহলে জেভাবে বলছে সে ভাবেই করেন।

 

গবেষণা করে এরপর কাজ করুন

লোগো ডিজাইন করার আগে আপনাকে আগে জানতে হবে যে ধরনের লোগো করছেন সেগুলি কেমন হয়।সেটার সম্পর্কে আইডিয়া না থাকলে আপনার সফটওয়্যার স্কিল যতই ভালো হউক আপনি ভালো ডিজাইন করতে পারবেন না।আপনি গুগল এ যেতে পারেন সেখানে গিয়ে সার্চ করে আপনি দেখে নিবেন কি কেমন হতে পারে সেটার রঙ, শেপ, আইডিয়া, সেখান থেকে আইডিয়া নিয়ে নিজের মত ডিজাইন করবেন। কপি করা যাবে কোনভাবেই।

কমপক্ষে দুইটা ডিজাইন জমা দেন

কমপক্ষে দুইটা ডিজাইন সাবমিট করবেন। এখানে একটাকে বলা হচ্ছে সেফ স্টাইল সেটা হচ্ছে বেশির ভাগ বায়ার ই যে ধরন এর লোগো পছন্দ করে থাকে। আপনি যখন লোগো দেখবেন গুগল এ দেখবেন যে এক ই ধরন এর লোগো অনেক আছে। তার মানে হচ্ছে লোগোর কিছু আলাদা স্টাইল আছে, বেশির ভাগ বায়ার সেটা পছন্দ করে থাকে। কিন্তু এখানে মনে রাখতে হবে  এই ধরন এর লোগো দিয়ে  কন্টেস্ট ভরা থাকে, যেহেতু কমন স্টাইল তাই এরকম তো হতেই পারে।তাই আপনাকে এটার বাইরে এসে এমন কিছু করতে হবে যেন সেটা বায়ারের কাছে অন্যরকম মনে হয়।মাঝে মাঝে বায়ার একদম অন্য ধরন এর লোগো পছন্দ করে তাই আপনার সৃজনশীলতা কাজে লাগিয়ে অন্যরকম ভাবে আর একটা ডিজাইন করেন।

 

কখন জমা দিবেন ডিজাইন

তাড়াতাড়ি নাকি দেরি করে? সুবিধা দুইটার ই আছে তাই দুই ভাবে ই চেষ্টা করে দেখবেন। দেখেন কোনটা কাজে দেয় আর কোনটা দেয় না।

তাড়াতাড়ি সাবমিট করার সুবিধা হচ্ছে সেটা বায়ার এর কাছে মেমোরেবল হয়ে থাকতে পারে।আপনি যদি প্রথমেই আপনার ডিজাইন ভালো লাগাতে পারেন তাহলে আপনার পর যে ডিজাইন জমা পড়বে যা অনেকটা আপনার ডিজাইন এর মত ই দেখতে সেগুলি খুব বেশি সুবিধা করতে পারবে না।অসুবিধা ও আছে সেটা হলো অনেক বায়ার প্রথম দিকের ডিজাইন দেখেই সিদ্ধান্ত নিতে চায় না। সে হয়ত মনে করে আরো দেখি, আরও দেখি এবং শেষে গিয়ে সিদ্ধান্ত নেয়।আর বায়ার এই ব্যাপারটা কিন্তু বুঝা একদম ই সহজ না যে  সে কিভাবে ডিজাইন পছন্দ করবে তাই আপনি দুইভাবে ই চেষ্টা করে দেখবেন।

বায়ারের সাথে যোগাযোগ রাখুন

প্রতিযোগিতায় জিতার আর একটা গুরুত্বপূর্ণ টিপস হলো বায়ার এর সাথে সব সময় যোগাযোগ রাখা। ডিজাইন যখন সাবমিট করবেন ডেসক্রিপশন এ অবশ্যই বিস্তারিত লিখে দিবেন আপনি কি কি করতে চাইছেন অথবা কি করতে পারবেন, আপনার আইডিয়াটা কি ছিলো। তার কোন আইডিয়া আছে কিনা, থাকলে আপনি সেভাবে কাজ করতে পারবেন এবং কিভাবে করবেন।ডিজাইন সাবমিট করার পর কমেন্টে অথবা ভাল হয় যদি ব্যাক্তিগত ভাবে মেসেজ করেন। সেখানে তাকে বিস্তারিত জানান। আপনি আর কি কি সার্ভিস দিতে পারবেন, কি কি ফাইল ফরম্যাট দিবেন, জিতার পর ফাইল জমা দেয়ার পর পরিবর্তন দরকার হলে সেটা করে দিবেন ইত্যাদি। আর একটা গুরুত্বপূর্ণ ব্যাপার হচ্ছে যত তাড়াতাড়ি মেসেজ এর উত্তর দিতে পারেন ততো ভালো। ভালো হয় আপনি যদি আপনার মোবাইল এ এই মার্কেটপ্লেসগুলার এপ্স ডাউনলোড করে নেন।

একটা প্রতিজগিতায় সব সময় দিয়েন না

মনে রাখবেন আপনি যত প্রতিযোগিতায় অংশ নিবেন আপনার জিতার সম্ভাবনা ততো বেশি থাকবে। তাই একটা প্রতিযোগিতার জন্য ১৫-২০ টা ডিজাইন করাটা বোকামি । মানসম্মত ডিজাইন করেন তাহলে ২-৩ টা ডিজাইন ই কাজে দিবে।আর আপনি অন্য প্রতিযোগিতায় ও অংশ নিতে পারবেন। মনে রাখবেন এখানে কয়টা ডিজাইন সাবমিট করেছেন সেটা  গুরুত্বপূর্ণ না, কি  মানের ডিজাইন সাবমিট করেছেন সেটা গুরুত্বপূর্ণ।

ডিজাইন জয়ী হলে কি করবেন আর না হলে?

ডিজাইন জয়ী হলে অবশ্যই চমৎকার একটা ব্যাপার কিন্তু এটা মনে রাখতে হবে প্রতিযোগিতায় সব সময় কিন্তু সেরা লোগোটাই জয়ী হয় না। এটা নির্ভর করে বায়ার এর পছন্দের উপর। আর যেহেতু প্রতিযোগিতা তাই একটা ডিজাইন ই জয়ী হবে তার মানে এই না যে অন্যগুলা ভালো না। তাই প্রতিযোগিতায় কিছুটা ভাগ্যর ও প্রয়োজন হয় তাই দুই একটা প্রতিযোগিতায় কাছাকাছি গেলেন তারপর হেরে গেলেন তারপর ভাগ্যের কথা বলে আর প্রতিযোগিতায় অংশই নিলেন না, তাহলে কিন্তু এটা বোকামি হবে।তাই হেরে গেলে কেনো হারলেন। যে জিতলো সে কেনো জিতলো বাপারগুলা থেকে কিছু শিক্ষা নেন তারপর অন্য একটায় মনোযোগ দেন।

 

আরিফুল ইসলাম

প্রশিক্ষক, গ্রাফিক ডিজাইন

আমার নাম আরিফুল। গ্রাফিক ডিজাইন, ডিজিটাল মার্কেটিং, ব্র্যান্ডিং ইত্যাদি বিষয় নিয়ে কাজ করি। লিখতে অনেক ভালোবাসি। মুলত আইটি বিষয়ক বিভিন্ন লেখা লিখি থাকি।আমি এই ব্লগের এডমিন। আশা করি আপনাদের ভালো কিছু আর্টিকেল দিতে পারবো যা পড়ে আপনারা উপকৃত হবেন। এটার সাথে আমি ই ক্যাব এবং জেনেসিস ব্লগে ও লিখে থাকি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *