ফ্রিল্যান্সিং

ইউটিউব ও গুগল রিসার্চ থেকেই আগ্রহ শুরু হয় ফ্রিল্যান্সিং করার- আতিকুর রহমান

ইউটিউব ও গুগল রিসার্চ থেকেই আগ্রহ শুরু হয় ফ্রিল্যান্সিং করার- আতিকুর রহমান

আমি আতিকুর রহমান  চাঁদপুর জেলা ফ্রীল্যান্সার এসোসিয়েশন এর সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছি। বর্তমানে ব্যবস্থাপনার উপর বিবিএ করছি (৩য় বর্ষ) ও ফ্রিল্যান্স গ্রাফিক ডিজাইনার হিসেবে কাজ করছি  বিভিন্ন অনলাইন মার্কেটপ্লেস এ।

 

 টেক প্রো টিউনসঃ কোথায় ফ্রিল্যান্সিং এর কাজ করছেন? কোন বিষয়ে কাজ করছেন?

আতিকুর রহমান  :  আমি বর্তমানে অনলাইন মার্কেটপ্লেস আপওয়ার্ক, ৯৯ডিজাইন ও ফাইভারে গ্রাফিক্স ডিজাইনার হিসেবে কাজ করছি।

 

টেক প্রো টিউনসঃ নতুন যারা ফ্রিল্যান্সিং এর কাজ করতে চায় কিন্তু কাজ পায় না তাদের জন্য কিছু টিপস দেন

আতিকুর রহমান  : লক্ষ্য আগে স্থির করতে হবে। অবশ্যই এই সেক্টরের উপার্জন না দেখে পরিশ্রম দেখে এগুতে হবে। আর অনেক হতাসা আসবে তা জেনেই দিনের পর দিন লেগে থাকার মানুষিকতা নিয়ে এগুতে হবে। সবার আগে নিজেকে স্কিল্ড করতে হবে।

 

টেক প্রো টিউনসঃ কিভাবে শুরু ফ্রিল্যান্সিং ক্যারিয়ার?

 আতিকুর রহমান  : ইউটিউব ও গুগল রিসার্চ থেকেই আগ্রহ শুরু হয়। পরবর্তীতে কিছু বাংলা ব্লগ বিশেষ করে ইকরাম স্যারের জেনেসিন ব্লগ পড়ে আগ্রহকে বাস্তবে রূপ দেয়ার চেষ্টা শুরু করি।কিন্তু দিনের পর দিন ব্যার্থ্য হয়েছি। তারপর বাংলাদেশ সরকারের লার্নিং এন্ড আর্নিং ডেভলাপমেন্ট প্রোজেক্ট এ সুযোগ পাই। সেখানে জাহাদ স্যার ও সোহেল স্যারের হাত ধরেই মূলত প্রফেশনালি শুরু করা।

 

টেক প্রো টিউনসঃ ফ্রিল্যান্সিং কে ফুল টাইম পেশা হিসেবে নেবার ইচ্ছা আছে কি?

আতিকুর রহমান  :  অবশ্যই। যারা একবার ফ্রীল্যান্সিং এর মজা বুঝে তারা এই ফিল্ড ছাড়তে চায়না। কিন্তু টিকে থাকতে অনেক আপডেট থাকতে হয়। ফিক্সড ক্লায়েন্ট এর সংখ্যা আরো বৃদ্ধি পেলে ফুল টাইম হিসেবেই নেবো ইন-শা-আল্লাহ। আপাতত পড়াশুনার পাশাপাশি চালিয়ে যাচ্ছি।

 

 টেক প্রো টিউনসঃ সফলতার পিছনের মানুষের কথা শুনতে চাই

আতিকুর রহমান  : সফলতার পিছনে অবশ্যই সবার আগে ছিলো আমার শিক্ষকদের হাত। জাহাদ স্যার, সোহেল স্যার ও ইকরাম স্যারের গাইডলাইন না পেলে এতদূর আসা হতো না। অনেকেই বলবে শিক্ষক আগে কেন।তার কারণ হচ্ছে অধিকাংশ মানুষ ফ্রীল্যান্সিং বিষয় টাই বুঝতো না, তারা এটা নিয়ে মজা করতো। যারা বুঝতো তারাই শুধুমাত্র উৎসাহ দিতো।দেশের আরো অনেক আইটি স্পেশালিস্টই আছেন যারা অনুপ্রেরনা হিসেবে কাজ করেছেন। আর ধন্যবাদ বাংলাদেশ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার পুত্র সজীব ওয়াজেদ জয় কে ফুল ফ্রী একটি উন্নত প্রফেশনাল কোর্সের মাধ্যমে আমাদের লক্ষ্যের পথে অনেকটা এগিয়ে দেবার জন্য।

 

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক পুরষ্কার হিসেবে ল্যাপটপ তুলে দিচ্ছেন আতিকুর রহমানকে 

 

 টেক প্রো টিউনসঃ  অনুপ্রানিত হোন কাদের মাধ্যমে

আতিকুর রহমান  : আমি আগেই বলেছি পিছনের মানুষগুলো আমাদের শিক্ষক জাহাদ স্যার, সোহেল স্যার ও ইকরাম স্যারই আনুপ্রেরণার মূল উৎস। যখন হাজার হতাসা আসে তখন অনুপ্রেরণা খুব দরকার । ঠিক তখনি ওনারা আমার পাশে ছিলেন, সাহস ও পরামর্শ দিয়েছেন।  এছাড়া ও বাংলাদেশ সরকারের তথ্য প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক স্যার তিনি বিভিন্ন সময় কথা দিয়ে, পুরষ্কার দিয়ে আমাকে অনেক অনুপ্রাণিত করেছেন।

 

টেক প্রো টিউনসঃ প্রথমবার যখন সফল হলেন তখন অনুভুতি কেমন ছিলো

আতিকুর রহমান  : তখনকার অনুভূতি টা মিশ্র ছিলো। কাজ পাওয়ায় আনন্দ ও লাগছিলো আবার একটা জরুরি মুহূর্তে হওয়ায় কিছু মুহূর্ত মিস করেছি। তবে কাজ শেষে ৫স্টার রেটিং পাবার পর আনন্দ টা বেড়ে গিয়েছিলো।

 

টেক প্রো টিউনসঃ ফ্রিল্যান্সিং করতে গিয়ে অনেকের একাউন্ট বাতিল হয়ে যায় মার্কেটপ্লেসে, কি বলবেন সমাধানের উপায়।

আতিকুর রহমান  : প্রত্যেক মার্কেটপ্লেসের কিছু টার্মস ও কন্ডিশন থাকে। জয়েন করার আগে তা ভালো করে পড়ে বুঝতে হবে। এই ক্ষেত্রে বিভিন্ন ব্লগে ও ইউটিউব ভিডিও আছে তা থেকে বুঝে তারপর কাজ শুরু করা দরকার। আর ক্লায়েন্ট কে মার্কেটপ্লেসে বাইরে বের করার প্রবণতা বা ইলিগাল এক্টিভিটি থাকলে সেই প্রবণতা থেকে বের হয়ে আসতে হবে। আর সিনিয়েরদের সাথে কানেক্টেড থাকলে ও নিয়মিত আপডেটগুলো জানা যাবে।

 টেক প্রো টিউনসঃ নিজেকে ৩ বছর পরে কোথায় দেখতে চান

আতিকুর রহমান  : নিজেকে ৩ বছরে আরো ভালো একটি অবস্থানে দেখতে চাই। মার্কেটপ্লেসের বাইরে নিজের কিছু নিজস্ব কাজ নিয়ে আগাচ্ছি। তাতে সফল হয়ে অনেক বেকার যুবক যুবতীর কর্মসংস্থান করতে চাই। এছাড়াও দুনিয়ার কাছে আমার মাধ্যমে বাংলাদেশ কে আরো একবার পরিচয় করাতে চাই।

আমার নাম আরিফুল। গ্রাফিক ডিজাইন, ডিজিটাল মার্কেটিং, ব্র্যান্ডিং ইত্যাদি বিষয় নিয়ে কাজ করি। লিখতে অনেক ভালোবাসি। মুলত আইটি বিষয়ক বিভিন্ন লেখা লিখি থাকি।আমি এই ব্লগের এডমিন। আশা করি আপনাদের ভালো কিছু আর্টিকেল দিতে পারবো যা পড়ে আপনারা উপকৃত হবেন। এটার সাথে আমি ই ক্যাব এবং জেনেসিস ব্লগে ও লিখে থাকি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *